,

স্বামী এবং চার বাচ্চাকে বেধে রেখে ঘরের উঠানে ১০/১১ জন পশু মিলে রাতভর ধর্ষন !!

শফিকুল ইসলাম রিপন:- ব্যাপার খুবই ক্লিয়ার – ঘটনার জের যাই হোক না কেন, নোয়াখালীতে স্বামী এবং চার বাচ্চাকে বেধে রেখে ঘরের উঠানে ১০/১১ জন পশু মিলে রাতভর ধর্ষন করে উলঙ্গ অবস্থায় ফেলে রেখে গেছে ভিক্টিমকে। ধর্ষকরা এর আগে ভিক্টিমের স্বামীকে মারধর করেছে। অতএব, উনি অনেক নামই প্রকাশ্যে বলতে পেরেছেন।

এই ভয়ংকর জিনিসের সাথে একাত্তরের রেপের কোন অমিল আমি খুঁজে পাই না। সেইসব রেপের একই ছিল ধরণ। পূর্নিমা রানীর ধর্ষণও একই ধরনের ছিল। তো আজও আমরা পূর্নিমা রানীর কথা মনে এলে শিউড়ে উঠলে এই ঘটনায় চুপ করে থাকব কেন?

আওয়ামীলীগকে আমরা সাপোর্ট করি আদর্শের কারনে। আওয়ামীলীগ এই সাপোর্টের জন্য আমাকে টাকা দেয় না। অতএব, আমি আমার আদর্শের সাথে আপোষ করব না কখনই।

এই ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি আমি। এর সুষ্ঠ তদন্ত এবং আসল আসামীদের দৃষ্টান্তমূলক সাজার জোর দাবী জানাই। আমার ভোটের যদি দাম থাকে, জনগনের রায়ের যদি দাম থাকে, শেখ হাসিনার কথার যদি দাম থাকে এই ঘটনার বিচার যেন হয়।

আমি আশা করি, আওয়ামীলীগ কতিপয় ধর্ষকের জন্য তাদের নীতির সাথে কম্প্রোমাইজ করবে না।

এ জাতীয় আরো সংবাদ


ফেসবুকে আমরা